ঘরে বসে তৈরি করুন গ্রীল চিকেন!

বাংলাদেশের হোটেল গুলোর ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি বিক্রি করা খাবারের তালিকায় সর্বপ্রথম কোনো খাবারের নাম আসলে সেইটা অবশ্যই গ্রিল চিকেন! কেননা হোটেলে গেলে মানুষের সর্বপ্রথম এই খাবারের প্রতি আগ্রহ বেড়ে যায়! মোটা মুটি একটা হালকা খরচেই এই খাবারটি পাওয়া যায়। তাইতো কোনো হোটেলে কোন পার্টির আয়োজন করলেও সেখানে এই গ্রিল চিকেন আর নান রুটির তুলনা হয় না!

তাই অনেকেই চিন্তা করে যদি এই রেসিপিটা বাসায় রান্না করে খাওয়া যেত তাহলে হয়তোবা আরো অনেক মজা হতো। অনেকের মনের এই ইচ্ছেটা রয়ে যায় মনেই! সেই সকল ভোজন প্রেমী মানুষগুলোর মনের চাওয়া যেন মনেতেই সীমাবদ্ধ না থাকে। যার জন্য তাদেরকে এই রেসিপিটি রান্না করা শিখানো টা খুবই গুরুত্বপূর্ণ মনে হয় আমার কাছে। তাই আজ আপনাদের শেখাবো কিভাবে ঘরে থেকে আপনিও তৈরি করতে পারবেন গ্রিল চিকেন!

গ্রীল চিকেন তৈরির ক্ষেত্রে আপনাকে প্রথমেই নিতে হবে একটা আস্ত মুরগি। এরপর মুরগিটাকে ভালো ভাবে ছিলে নিন। ভিতরের ময়লা গুলো যেন ভালো ভাবে পরিস্কার হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। এরপর মুরগিটাকে ভালো ভাবে ধুয়ে নিতে হবে। ধুয়ে নেয়ার পর অবশ্যই মুরগিটাকে শুঁকনো কাপড় দিয়ে মুছে নিতে হবে। তবে কাপড় দিয়ে মুছে নেয়ার সময় খেয়ার রাখতে হবে ব্যবহৃত কাপড় টি যেন পরিস্কার থাকে।

মুরগিটাকে মুছে নেয়ার পর পা দুটোকে রাবার দিয়ে পেচিয়ে দিন যেন ভাজার সময় কোনো সমস্যা না হয় পাশাপাশি দেখতেও যেন সুন্দর হয়। এখন মুরগিটাকে একটি ধারালো ছুড়ি দিয়ে চিরে দিতে হবে। চিরে দেয়ার ক্ষেত্রে মাথায় রাখতে হবে ছুড়ি যেন হাড় পর্যন্ত পৌছায়। তা না হলে ভাজার সময় শুধুমাত্র উপরে অংশ সিদ্ধ হবে কিন্তু ভিতরের অংশ কাচাই থেকে যাবে।

এখন মসলা নেয়া যাক। মসলা নেয়ার ক্ষেত্রে প্রথমে গরম মসলা গুরু করে নিতে হবে। তবে তা আগেই দেয়া যাবে না। যাই হোক, মসলার মিশ্রন তৈরির ক্ষেত্রে প্রথমে পেয়াজ বাটা, আদা বাটা, রসুন বাটা, মরিচের গুড়ো, জিরার গুরা, ট্মেটো সস, লবন সবকিছুই পরিমান মতো নিয়ে মিক্স কতে হবে। এরপর প্রস্তুতকৃত মুরগিটিকে মসলার মিশ্রনে ভালোভাবে মেশাতে হবে। মসলা যেন ভালো ভাবে মুরগীর গায়ে লাগানো হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। তা না হলে ভালো ভাবে হাত দিয়ে মসলা চিড়ে দেয়া অংশে ঢুকিয়ে দিতে হবে।

এখন একটি চিকন রড নিয়ে প্রস্তত করা মুরগিটির মাঝামাঝি দিয়ে ঢুকিয়ে জলন্ত আগুনের উপর রেখে দিতে হবে। তবে শুধু রেখে দিলেই হবে না নির্দিষ্ট সময় মতো ঘুরিয়ে দিতে হবে যেন সব পাশেই ভালোভাবে সিদ্ধ হয়। এই রকম ভাবে মোটামুটি ৪৫ মিনিট ঘুরিয়ে একটি চিকন কাঠি মুরগির গায়ে ঢুকিয়ে দিয়ে বের করলে বুঝতে পারবেন মুরগিটি খাওয়ার উপযুক্ত হয়েছে কি না। প্রস্তুত হয়ে গেলে আগুন থেকে নামিয়ে প্লেটে সারভ করে আপনিও বাসায় বসে খেতে পারবেন গ্রিল চিকেন!

পরবর্তীতে আরো নতুন কোনো খাবার রান্না করার টিপস পেতে পাশে থাকবেন, ধন্যবাদ!

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *